আপনার কি ঘুম আসছে না? তাহলে এর সমাধান আছে যোগাসনে, জেনেনিন

রাত্রিবেলা বিছানায় শুয়ে শুধু এপাশ ওপাশ করছেন। কিছুতেই এক হচ্ছে না দুই চোখের পাতা। আবার ঘুম এলেও ভেঙে যাচ্ছে কিছুসময় পরেই। পাতলা ঘুমের জন্য স্বাভাবিকভাবে বিগড়ে যাচ্ছে মেজাজ। ঘুমের অভাবে মন বসছে না কাজে। কাজ করতে গিয়ে হয়ে যাচ্ছে হাজারও ভুল। এমন সমস্যায় কিন্তু আপনি একা নন। পৃথিবীর নানা প্রান্তের বহু মানুষ এই একই সমস্যায় ভুগেছেন।‌

অথচ মাত্র কয়েকটি যোগব্যায়াম আপনাকে বের করে আনতে পারে এমন অবস্থা থেকে। দেখে নিতে পারেন কী কী যোগব্যায়াম আপনাকে এনে দিতে পারে গভীর ও শান্তির ঘুম।

বদ্ধ কোণাসন

এই যোগব্যায়াম মাটিতে বা সমতল এলাকায় বসে করতে হয়। চারপাশ শান্ত এমন পরিবেশ বেছে নিয়ে মাটিতে আসন পেতে বসুন। এরপর দুই পায়ের পাতাকে মুখোমুখি নিয়ে আসুন। একটু কষ্ট হবে আনতে, তাও চেষ্টা ছাড়বেন না। দুই পায়ের পাতা এক জায়গায় আনার পর শিরদাঁড়া সোজা করে বসুন। নাক দিয়ে শ্বাস নিন বুকভরে। শ্বাস নেওয়ার সময় শিরদাঁড়া সোজা রাখুন। এবার ধীরে ধীরে শ্বাস ছাড়ুন। শ্বাস ছাড়তে ছাড়তে সামনের দিকে যতটা সম্ভব ঝুঁকে পড়ুন। এই প্রক্রিয়া অন্তত ১৫ থেকে ২০ মিনিট করুন। দেখবেন ঘুম আপনা থেকেই চলে এসেছে।

বিপরীত করণী

এই যোগব্যায়ামটি করতে হয় দেওয়ালের সঙ্গে পা লাগিয়ে।‌ এর জন্য প্রথমে দেওয়ালের দিকে মুখ করে দেওয়াল ঘেঁষে বসতে হবে। এরপর ধীরে ধীরে চিৎ হয়ে শুয়ে পড়ুন মেঝেতে। শোওয়ার পর পা দুটো তুলে দিতে হবে দেওয়াল বরাবর ছাদের দিকে। পা যেন দেওয়ালের সঙ্গে লেগে থাকে। আর চেষ্টা করুন দেওয়ালের দিকে যতটা সম্ভব এগিয়ে যেতে, যাতে নিতম্ব দেওয়ালের গায়ে লাগে। এরপর চোখ বুজে শুয়ে থাকুন ১৫ থেকে ২০ মিনিট। যদি দেওয়াল ফাঁকা না থাকে, তবে ঘরের মাঝখানেও করতে পারেন, শুধু দেখবেন পা দুটো যেন একসঙ্গে থাকে।

উপবিষ্ট কোণাসন

মাটিতে বসে পা দুটো ইংরেজি ভি অক্ষরের শেপে ছড়িয়ে দিন। বসার সময় শিরদাঁড়া সোজা রাখতে ভুলবেন না। এবার দুই হাত দিয়ে দুই পায়ের আঙুল ছুঁতে হবে। ছোঁয়ার সময় শরীর সামনের দিকে সামান্য বেঁকে যাবে। এবার জোরে শ্বাস নিতে হবে, শ্বাস নেওয়ার সময় সোজা রাখুন শিরদাঁড়া। কয়েক মুহূর্ত পর ধীরে ধীরে শ্বাস ছাড়ুন ও সামনের দিকে বাঁকিয়ে দিন শরীর। এভাবে ১৫ মিনিট আসনটি করুন। চোখ ঘুম নেমে আসবেই।

জানু-শীর্ষাসন

মাটিতে বসে প্রথমে ছড়িয়ে দিন দুই পা। এরপর ডানপায়ের তলায় ঢুকিয়ে দিন বাঁ পায়ের পাতা। বাম হাত দিয়ে ধরুন ডান পায়ের পাতা। এতে দেখবেন আপনার শরীর বেঁকে যচ্ছে মাটির দিকে। বেঁকে যেতে দিন, শুধু সোজা রাখুন শিরদাঁড়া। শিরদাঁড়া সোজা রাখতে বাঁ পায়ের পাতা দিয়ে ডান পায়ের থাইকে উপরের দিকে সামান্য তুলে দিন। এবার সোজাভাবে বসে জোরে শ্বাস নিন। কয়েকমুহূর্ত পর শ্বাস ছাড়ুন। শ্বাস ছাড়ার সময় মাটির দিকে বেঁকিয়ে দিন শরীরটা। এভাবে ১৫ মিনিট এই আসন করতে থাকুন।bs

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© 2022 Tips24 - WordPress Theme by WPEnjoy