এখন আপনার অকালে চুল পাকা রোধে ব্যবহার করুন এই ঘরোয়া টোটকা, জানাচ্ছে বিশেষজ্ঞরা

চুল সাদা হয়ে যাওয়া খুব স্বাভাবিক ঘটনা। অনেকের ধারণা বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই বুঝি চুল সাদা হয়। আসলে চুল সাদা হওয়ার সঙ্গে বয়সের কোনো সংযোগ নেই। যে কোনো বয়সে চুল পেকে যেতে পারে। এর অনেক কারণ রয়েছে। দুশ্চিন্তা, হরমোনের সমস্যা, কেমিকেল পণ্য ব্যবহার, অতিরিক্ত ওষুধ সেবন চুল পেকে যাওয়ার অন্যতম কারণ।

আবার বেশি তেল ঝাল মশলা যুক্ত খাবার খান, বাইরের খাবার বেশি খান তাহলে চুল পেকে যাবে তাড়াতাড়ি। তাই শরীরের পাশাপাশি চুলের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে স্বাস্থ্যকর খাবার, শাক সবজি বেশি খেতে বলা হয়। খাওয়া দাওয়ার পাশাপাশি চুল ভালো রাখার জন্য নিজেকে রোগ মুক্ত রাখা খুব দরকার। তবে যাদের চুল ইতিমধ্যেই পেকে গেছে তারা ঘরোয়া উপায়ে এর থেকে মুক্তি পেতে পারেন। চলুন জেনে নেয়া যাক উপায়গুলো-

আদা 
প্রতিদিন আদা খেলে পাকা চুল হবে না। এক চা চামচ গ্রেটেড আদা এক টেবিল চামচ মধুর সঙ্গে মিশিয়ে খান প্রতিদিন, কাজ হবে দারুণ।

আমলকি 
প্রতিদিন আমলকি খেলেও চুলের স্বাস্থ্যের উন্নতি হবে। যারা কাঁচা আমলকি খেতে পারেন না। তারা প্রতিদিন ছয় আউন্স ফ্রেশ আমলকির জুস খেতে পারেন। সপ্তাহে একবার চুলে আমলকির তেল লাগালেও কাজ হবে।

নারকেল তেল
নারকেল তেল চুল ভালো রাখার ক্ষেত্রে ওষুধের মতো কাজ করে। রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে ভালো করে চুলে এবং স্ক্যাল্পে নারকেল তেল দিয়ে ম্যাসাজ করুন। পরের দিন সকালে চুল ধুয়ে ফেলুন। একদিন ছাড়া নারকেল তেল চুলে লাগালে পাকা চুলের সমস্যা দূর হবে।

কালো তিল 
কালো তিল চুল সাদা হতে দেয় না। এক টেবিল চামচ কালো তিল খেলে চুল পাকবে না। সপ্তাহে দুই থেকে তিন বার খেতে পারেন।

পেঁয়াজ
পেঁয়াজের রস চুলের জন্য দারুণ ওষুধ। এটি চুল ভালো রাখার পাশাপাশি চুল পাকা রোধ করে। সপ্তাহে দুইবার স্ক্যাল্পে পেঁয়াজের রস ভালোভাবে ঘষুন। ৩০ মিনিট রেখে শ্যাম্পু করে নিন।bs

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© 2022 Tips24 - WordPress Theme by WPEnjoy