নারীরা যে ৫টি কারণে বেশি বেশি আম খাবেন, জেনেনিন বিস্তারিত

স্বাদের পাশাপাশি ‘ফলের রাজাʼ আমের স্বাস্থ্যগুণও প্রচুর। পরিমিত পরিমাণে আম খেলে শরীর সুস্থ থাকে। কিন্তু নারীদের জন্য আম খাওয়ার বিশেষ উপকারিতা আছে কি?
স্বাদে আমকে টেক্কা দিতে পারে গরমকালে এমন ফল কমই রয়েছে। তাই গ্রীষ্ম এলেই বাজারে হিমসাগর থেকে গোলাপখাস, সব রকম আমের কদর ও দর দুই নিয়ে ব্যস্ত হয়ে যায় বাঙালি। গরমে খিদে মেটাতে তাই ফ্রিজ থেকে বের করে আম খাওয়ার প্রবণতা আম বাঙালির মধ্যে দেখা যায়!
তবে শুধু কি স্বাদ! গুণের দিক থেকেও কিন্তু অন্যান্য ফলকে রীতিমতো টেক্কা দিতে পারে আম। বিশেষ করে নারীদের জন্য আম কিন্তু বিশেষভাবে উপকারী। পেট থেকে ত্বক-চুল বিভিন্ন সমস্যা মেটানোর জন্য আমের ভূমিকা অস্বীকার করা যায় না। পুষ্টিবিদদের মতে, আমের শাঁস থেকে আঁটি পুরোটা থেকেই উপকার মেলে। এ কারণে নারীদের বেশি বেশি করে আম খাওয়ার পরামর্শ পুষ্টিবিদদের।

১) কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে: আমে রয়েছে উচ্চ পরিমাণে ভিটামিন সি, সেই সঙ্গে ফাইবার। রক্তে উপস্থিত খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে আম। তাই পরিমাণ বুঝে নিয়মিত আম খান।

২) স্তন ক্যানসারের ঝুঁকি কমায়: আমের মধ্যে রয়েছে অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট যা ক্যানসার প্রতিরোধে সাহায্য করে। নারীদের স্তন ক্যানসারের ঝুঁকি কমাতেও সাহায্য করে আম। গরম পড়তেই মারণরোগের ঝুঁকি কমাতে রোজের খাদ্যতালিকায় রাখতে পারেন আম।

৩) দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধি করতে: মানুষের শরীরে প্রয়োজনীয় ভিটামিন ‘এ’-র চাহিদার প্রায় ২৫ শতাংশের জোগান দিতে পারে আম। ভিটামিন ‘এ’ চোখের জন্য খুবই উপকারী। আম দৃষ্টিশক্তি বাড়ায়।

৪) ত্বকের যত্নে: ত্বকের যত্নেও দারুণ ভূমিকা পালন করে আম। আমের আঁশে থাকা ভিটামিন ‘সি’ ত্বকের ঔজ্জ্বল্য বাড়ায়। আম বাটা মাখলেও ত্বকের রোমকূপে জমে থাকা ময়লা পরিষ্কার হয়। গরমে ত্বকের যত্ন নিতে ভরসা রাখতে পারেন আমে।

৫) হজমশক্তি বৃদ্ধি করে: যারা হজমের সমস্যায় ভুগে থাকেন, গরমে সুস্থ থাকতে তারা আম খেতে পারেন। আমে রয়েছে উপকারী উৎসেচক, যা শরীরের প্রোটিন অণুগুলো ভেঙে ফেলতে সাহায্য করে এবং হজমশক্তি বাড়াতেও সাহায্য করে। তবে বেশি পরিমাণে খেলে উল্টো ফল হতে পারে।bs

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© 2022 Tips24 - WordPress Theme by WPEnjoy